রবিবার, ২0 অক্টোবর ২0১৯, Current Time : 3:37 am
  • হোম » আন্তর্জাতিক »
    মোদির সঙ্গের বৈঠক হবে: সংবাদ সম্মেলনে মোমেন
    শেখ হাসিানকে বরণে প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ




মোদির সঙ্গের বৈঠক হবে: সংবাদ সম্মেলনে মোমেন
শেখ হাসিানকে বরণে প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ

সাপ্তাহিক আজকাল : 21/09/2019

আজকাল রিপোর্ট
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বরণে প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ। প্রতিবারের মত এবারও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আগমন উপলক্ষে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের উদ্যোগে নাগরিক সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হবে। ২৮ সেপ্টেম্বর, শনিবার দুপুরে টাইমস স্কয়ার সংলগ্ন ম্যারিয়ট মার্কি হোটেলের বলরুমে নাগরিক সংবর্ধনায় যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী।
প্রধানমন্ত্রীর জাতিসংঘ সফর উপলক্ষে ঢাকা থেকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং নিরাপত্তা বাহিনীর কর্মকর্তারা নিউইয়র্ক অবস্থান করছেন।
প্রধানমন্ত্রী ও দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনাকে জেএফকে বিমানবন্দরে বিপুলভাবে অভ্যর্থনা জানানোর প্রস্তুতি চলছে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবারে। এই লক্ষ্যে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, মহিলা লীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও শ্রমিক লীগসহ বিভিন্ন সহযোগী ও অঙ্গ সংগঠনের উদ্যোগে জনসংযোগ চলছে। যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি ড. সিদ্দিকুর রহমান ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদের নেতৃত্বে চলছে এসব কর্মকান্ড। প্রধানমন্ত্রীর সংবর্ধনা সফল করতে চলছে টাউন হল মিটিং। ইতোমধ্যে জ্যামাইকা ও ওয়াশিংটন ডিসিতে সভা হয়েছে।
এছাড়া যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের অন্যতম উপদেষ্টা ও বাকসু’র সাবেক জিএস ড. প্রদীপ রঞ্জন কর, মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক মিসবাহ আহমেদ, শিল্প বিষয়ক সম্পাদক ফরিদ আলমের নেতৃত্বে সম্প্রতি একটি সমাবেশ হয়েছে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানানোর লক্ষ্যে।
প্রধানমন্ত্রীর সংবর্ধনা আয়োজন সম্পর্কে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি ড. সিদ্দিকুর রহমান বলেন, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে আমি গর্বিত এবং প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনার কাছে চির কৃতজ্ঞ। দলের সভাপতি হিসেবে আমার আর চাওয়া পাওয়ার কিছু নেই। প্রধানমন্ত্রী আমাকে অনেক সম্মান দিয়েছেন। তবে মজার ব্যাপার হচ্ছে এবার প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনের দিনই নিউইয়র্কে তাঁর সম্মানে সংবর্ধনার আয়োজন করা হচ্ছে। তিনি বলেন, আমি মনে করি এটি যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী পরিবার সহ সকল প্রবাসীদের জন্য আল্লাহ প্রদত্ত একটি চমক।
ড. সিদ্দিক বলেন, আমার জানা মতে ব্যক্তিগতভাবে প্রধানমন্ত্রী জন্মদিন পালন পছন্দ করেন না। তারপরও দলীয় নেতা-কর্মীদের আবেগকে সম্মান জানাতে হয়। তাই তাঁর জন্মদিনের আবহে ২৮ সেপ্টেম্বর সংবর্ধনা অয়োজনের প্রস্তুতি চলছে। ম্যানহাটানের অভিজাত ম্যারিয়ট মার্কি হোটেলে এদিন দুপুর ১২টায় সংবর্ধনা হল বলরুমের দরজা খোলা হবে। বেলা ২টায় প্রধানমন্ত্রী আসবেন সংবর্ধনাস্থলে। প্রধানমন্ত্রীর সংবর্ধনা সফল করতে তিনি সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।
ড. সিদ্দিকুর রহমান বলেন, বিগত বছরগুলোতে জন্মদিনে যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করলেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার জন্মদিন আনুষ্ঠানিকভাবে পালনের অনুমতি দেননি কাউকেই। এসময়ে নিউইয়র্কে থাকলে তার হোটেলের স্যুট একান্ত পারিবারিক আয়োজনে জন্মদিন পালন করেছেন। আর ওয়াশিংটনে থাকলে তাঁর পুত্র সজিব ওয়াজেদ জয়ের ভার্জিনিয়ার বাসভবনে জন্মদিন পালন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
ড. সিদ্দিকুর রহমান বলেন, নাগরিক সংবর্ধনায় দলীয় প্রধানকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি নাগরিক সংবর্ধনায় ভিন্ন মাত্রা আবহাওয়া। আর তাই এবারের সংবর্ধনা আগের সকল সংবর্ধনার চেয়ে জাকঁজমকপূর্ণ হবেই আশা করছি।
যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদ জানান, প্রানমন্ত্রীর সংবর্ধনা সফল করতে শুধু নিউইয়র্ক নয়, পুরো যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে দলের শাখা ও সহযোগী সংগঠনগুলোতে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা বিরাজ করছে। সেই সাথে চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি।
এদিকে বুধবার জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী মিশনের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীর সফর নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। স্থায়ী মিশনের বঙ্গবন্ধু মিলনায়তনের এ সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন স্থায়ী প্রতিনিধি ও রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী বরাবরের মতো এবারো জাতিসংঘে বাংলায় ভাষণ দেবেন ২৭ সেপ্টেম্বর, শুক্রবার। প্রধানমন্ত্রীর জাতিসংঘ সফরকালীন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সাথে তার কোন আনুষ্ঠানিক বৈঠক হবে না, তবে জাতিসংঘের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে দেখা হবে। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সাথে আনুষ্ঠানিক বৈঠক হবে। বৈঠকের আলোচনায় রোহিঙ্গা, আসাম, কাশ্মীর, স্বাস্থ্য, শিক্ষা, পরিবেশ প্রভৃতি ইস্যু প্রাধান্য পাবে। এছাড়াও জাতিসংঘের মহাসচিব সহ বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্র বা সরকার প্রধানের সাথে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বৈঠক হবে। রোহিঙ্গা ইস্যুতে যুক্তারাষ্ট্র, মালয়েশিয়া, কানাডা ছাড়াও ওআইস, আইসিজে প্রতিনিধিসহ আন্তর্জাতিক ফোরামের সাথে আলোচনা হবে। প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশের উদ্দেশ্যে নিউইয়র্ক ত্যাগ করবেন ২৯ সেপ্টেম্বর রোববার। সংবাদ সম্মেলনে মিশনের উপ স্থায়ী প্রতিনিধি তারেক মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম ও মিনিস্টার মনোয়ার হোসেন উপস্থিত ছিলেন। সংবাদ সম্মেলন সঞ্চালনা করেন ফাস্ট সেক্রেটারী (প্রেস) নূর এলাহী মিনা।



Chief Editor & Publisher: Zakaria Masud Jiko
Editor: Manzur Ahmed
37-07 74th Street, Suite: 8
Jackson Heights, NY 11372
Tel: 718-565-2100, Fax: 718-865-9130
E-mail: [email protected]
� Copyright 2009 The Weekly Ajkal. All rights reserved.